বাঙালিকে 'বাংলাদেশী' বলায় কণিষ্কের বিরুদ্ধে সাইবার ক্রাইমে অভিযোগ দায়ের বাংলা পক্ষর - Banglar Chokh | True News for All

Breaking

Home Top Ad

Post Top Ad

Monday, March 23, 2020

বাঙালিকে 'বাংলাদেশী' বলায় কণিষ্কের বিরুদ্ধে সাইবার ক্রাইমে অভিযোগ দায়ের বাংলা পক্ষর

করোনা আতঙ্কে ভুগছে গোটা ভারত। বিভিন্ন কোম্পানী কর্মীদের বাড়ি থেকে কাজ করার পরামর্শ দিয়েছে, সব জায়গা থেকে কর্মীরা বাড়ি ফিরছে। আর তখনই কণিষ্ক নামের এক ব্যক্তি বাঙালিকে 'বাংলাদেশী' বলে ফেসবুকে মস্করা করল।
কণিষ্ক ফেসবুকে লিখেছেন
"If work from home is followed in Bengal, half of the population would be working from Bangladesh"
(কণিষ্কের ফেসবুক প্রোফাইলের লিংক-
https://www.facebook.com/Kanishk.Ray

কণিষ্কের এই কুৎসিত ফেসবুক পোস্টের লিংক-
https://m.facebook.com/story.php?story_fbid=10212652874837265&id=1847293797
পোস্টটি চাপে পড়ে ডিলিট করেছেন কণিষ্ক)
(বাংলা পক্ষর ফেসবুক পেজ থেকে পাওয়া ছবি)

এর বিরুদ্ধে প্রতিবাদে সোচ্চার বাংলা পক্ষ৷ লালবাজার সাইবার ক্রাইমে লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হল কণিষ্কের বিরুদ্ধে৷ সর্বোচ্চ শাস্তির দাবি জানানো হয়েছে সংগঠনের তরফে।

(কণিষ্কের ফেসবুক প্রোফাইল থেকে পাওয়া ছবি)

বাঙালি মানেই বাংলাদেশী? ইদানীং কালে বাংলাদেশী সন্দেহে বাঙালিকে ভারতের নানা প্রান্তে অত্যচার করা হচ্ছে। কেন এই বাঙালি বিদ্বেষ?
বাঙালি সন্দেহে ব্যাঙ্গালোরে বাঙালি বস্তি ভেঙে গুঁড়িয়ে দেওয়া হয়েছে, ভয়ে ঘরে ফিরেছেন বাঙালি শ্রমিকরা। মুম্বাই এ বাংলাদেশী খুঁজে দিলে ৫০০০ টাকা পুরষ্কার মূল্য ঘোষণা করেছে রাজ ঠাকরে, বাংলায় কথা বললেই বাংলাদেশী সন্দেহে আক্রমণ করা হচ্ছে বাঙালিদের। সাম্প্রতিক অতীতে যে ঘটনা সাড়া ফেলেছিল, বাংলায় বিজেপির দায়িত্বে থাকা মধ্যপ্রদেশের কৈলাশ বিজয়বর্গী বাঙালি নির্মাণ শ্রমিকদের কাজ থেকে বের করে দেন বাংলাদেশী সন্দেহে, কারণ তারা চিঁড়ে খাচ্ছিল। ভারতের নানা রাজ্যে, নানা শহরে বাংলায় কথা বললেই হেনস্থা করা হচ্ছে।
বিজেপির এন আর সি এবং সিএএ প্রচারের কারণেই এভাবে বাঙালিকে বাংলাদেশী বলে আক্রমণ করা হচ্ছে, মত বিশেষজ্ঞ মহলের। এই মানসিকতা ভাইরাসের মতো ছড়াচ্ছে। ভিন রাজ্য তো বটেই নিজের মাটিতেই আতঙ্কে বাঙালি৷
বাংলা পক্ষর পক্ষ থেকে বাংলার চোখকে জানানো হয় 'বাঙালির শত্রু হিন্দি সাম্রাজ্যবাদী বিজেপির প্রচারের কারণে বাঙালির শত্রুরা (গুটখা, ধোকলা, ভুজিয়া) এবং তাদের কিছু বঙ্গজ দালাল বাঙালিকে বাংলাদেশী বলছে। এটা শাস্তিযোগ্য অপরাধ। আমরা এদের সর্বোচ্চ শাস্তি চাই, যাতে কেউ বাঙালিকে বাংলাদেশী বলার সাহস না পায়"।
(বাংলার চোখ কণিষ্কের প্রোফাইল ঘেঁটে জানতে পেরেছে কণিষ্ক একজন বিজেপি সমর্থক)
-নিজস্ব সংবাদদাতা, বাংলার চোখ

2 comments:

  1. Yes because most of the literate Bengalis are working outside Bengal and those working here are also willing to settle out. But it is Bangladeshis who are more interested to visit Bengal and work. If you don't have the data then you shouldn't post also. In your view if this person is trying to defame Bengalis then you are trying to defame each and every non bengali. But a meme shall be taken as meme instead of trying to make something unnecessary sense out of it for your own benefits.

    ReplyDelete
  2. *nonBengali. But a meme shall be

    ReplyDelete

Post Bottom Ad