বিজেপির শাসনে অত্যাচারিত ত্রিপুরার বাঙালি, কলকাতায় ত্রিপুরা ভবন অভিযান করছে বাংলা পক্ষ - Banglar Chokh | True News for All

Breaking

Home Top Ad

Post Top Ad

Friday, February 7, 2020

বিজেপির শাসনে অত্যাচারিত ত্রিপুরার বাঙালি, কলকাতায় ত্রিপুরা ভবন অভিযান করছে বাংলা পক্ষ

গত ১০ ই ডিসেম্বর ত্রিপুরার কাঞ্চনপুরের আনন্দবাজারে রিয়াং রা ৯৩ টি বাঙালি পরিবারের বাড়িঘর-দোকান ভাঙচুর করে, আগুন লাগিয়ে দেয়। প্রায় ৪৫০ জন বাঙালি উদ্বাস্তু হয়ে শরণার্থী শিবিরে আশ্রয় নিয়েছেন। কিন্তু দুমাস অতিবাহিত হলেও রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে কোনো পুনর্বাসন দেওয়া হয়নি। বিজেপি শাসিত রাজ্য সরকারের বাঙালি বিদ্বেষী মনোভাব, মহারাজা প্রদ্যুৎ কিশোর মাণিক্যর উস্কানির ফলেই ঘটেছে এই ঘটনা-অভিযোগ ত্রিপুরার বাঙালির। এই ইস্যুতে
আগেই কাঞ্চনপুরের দাসদায় প্রায় ২৫ হাজার বাঙালির জনসভা করে প্রতিবাদ জানিয়েছে কাঞ্চনপুর নাগরিক সুরক্ষা মঞ্চ, সভায় উপস্থিত ছিলেন বাংলা পক্ষর প্রতিনিধিও।



কয়েকদিন আগে এক টিভি সাক্ষাৎকারে রাজা প্রদ্যুৎ কিশোর মাণিক্য রাজবাড়ির সামনে বাঙালির মহানায়ক ক্ষুদিরাম বসু ও  সূর্য সেনের মূর্তি বসানোর বিরুদ্ধে সরব হয়েছেন। আগরতলা বিমান বন্দরের নাম যাতে সুভাষ চন্দ্র বসুর নামে না হয় সে ব্যাপারে সোচ্চার হয়েছেন। তিনি প্রশ্ন তুলেছেন বাঙালির মহানায়কদের ত্রিপুরায় অবদান নিয়ে৷ তাঁর প্রতিটা কথায় বাঙালি বিদ্বেষ স্পষ্ট।
     (আনন্দবাজারে শরণার্থী শিবিরের ছবি)
ত্রিপুরায় বাঙালিকে 'বাংলাদেশী' বলে হেনস্থা করা হচ্ছে। বিজেপি ক্ষমতায় আসার পর বাঙালি সমস্যা প্রতিদিন বাড়ছে। এর প্রতিবাদেই রাস্তায় নামছে বাঙালি জাতীয়তাবাদী সংগঠন বাংলা পক্ষ। আগামীকাল ৮ ই ফেব্রুয়ারী শনিবার বিকাল ৪ টায় কলকাতার সল্টলেকে অবস্থিত ত্রিপুরা ভবন অভিযান করবে বাংলা পক্ষ। ত্রিপুরায় কোনো ভাবেই যাতে বাঙালি অত্যাচারিতে না হয়, ক্ষতিগ্রস্ত বাঙালি যাতে পুনর্বাসন পায়- সেই দাবি জানিয়ে মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেবকে লেখা ডেপুটেশন জমা দেবে বাংলা পক্ষ। সংগঠনের পক্ষ থেকে সকল বাঙালিকে যোগ দেওয়ার আবেদন জানানো হয়েছে।

-নিজস্ব সংবাদদাতা, বাংলার চোখ

No comments:

Post a Comment

Post Bottom Ad